x 
Empty Product
Tuesday, 20 March 2018 08:48

চাঁপাইনবাবগঞ্জে আম সংরক্ষণের জন্য হিমাগার করা হবে- জেলা প্রশাসক

Written by 
Rate this item
(0 votes)

চাঁপাইনবাবগঞ্জ আমের রাজধানী। জেলার আম সংরক্ষনের জন্য হিমাগার তৈরী করা হবে। আমের দাম বেশি পেতে আমাদের ¯স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদন করতে হবে। আম উৎপাদনের জন্য কৃষকদের যথাযোথ ভাবে প্রশিক্ষণ নিয়ে আম উৎপাদনের জন্য সকলকে এগিয়ে আসতে হবে। আম এই জেলার অর্থকরী সফল। আমাদের এই অর্থকরী সফলকে রক্ষণাবেক্ষণ ও সংরক্ষণের দায়িত্ব সকলের। আম পঁচনশীল। আম যেনো পঁচে নষ্ট না হয় তাই আম সংরক্ষণের জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলাতে হিমাগার তৈরী করা হবে। মঙ্গলবার সকালে শিবগঞ্জ উপজেলা কৃষি অফিসের মিলনায়তনে আমচাষিদের নিরাপদ, ¯স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদনের কলাকৌশল বিষয়ক স্থানীয় আমচাষিদের নিয়ে ২ দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল হাসান এসব কথা বলেন। জেলা প্রশাসক আরো বলেন, আমের উপর নির্ভর করেই এই জেলার সাধারণ কৃষকসহ সাধারণ মানুষদের আর্থিক স্বচ্ছলতা ও পরিবারের খরচ চলে। আমাদের এই জেলার সম্পদ আম ¯স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদন করে বাজারজাতের মাধ্যমে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে হবে। সেই জন্য আম চাষিদের নৈতিকতা ধরে রাখতে হবে। আম পরিপক্ক না হওয়া পর্যন্ত গাছ থেকে আম পাড়া যাবে না। আঞ্চলিক ও প্রকৃতির আবহাওয়া পরিবর্তনের কারণে এই জেলার অর্থকরী ফসল আম দেরিতে পরিপক্ক হয় এবং পাঁকে। চাঁপাইনবাবগঞ্জের বাইরের বিভিন্ন অঞ্চলের আম আগে পাঁকার কারণে এই জেলার আম চাষিদের ১৫/২০ দিন অপেক্ষা করতে হয়। আমের দাম বেশি পাওয়ার আশায় অনেক চাষি অপরিপক্ক আম গাছ থেকে পাড়া শুরু করে। কিন্তু আমরা যদি স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদন করি, তাহলে দাম বেশি পাবো। আমাদের স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদনের মাধ্যমে আম সমৃদ্ধ জেলা হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। এছাড়া জেলার ঐতিহ্য ধরতে রাখতে রেশম সিল্ক ও লাক্ষার পর্যটন হিসেবে গড়ে তোলার আহŸান জানান জেলা প্রশাসক মাহমুদুল হাসান। চাঁপাইনবাবগঞ্জ কৃষি সম্প্রাসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. মঞ্জুরুল হুদার সভাপতিত্বে প্রশিক্ষণে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বিএআরসি’র এনএটিপি পরিচালক ড. মিয়া সাঈদ হাসান, বিএআরসি’র (টিটিএমইউ) পরিচালক ড. শেখ মো. বখতিয়ার, চাঁপাইনবাবগঞ্জ আঞ্চলিক উদ্যানতত্ত¡ গবেষণা কেন্দ্রের মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. হামিম রেজা, শিবগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. কারীবুল হক রাজিন ও শিবগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শফিকুল ইসলাম। চাঁপাইনবাবগঞ্জ আঞ্চলিক উদ্যানতত্ত¡ গবেষণা কেন্দ্রের উর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. শরফ উদ্দিনের সঞ্চালনায় প্রশিক্ষণের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ড. শফিকুল ইসলাম ও শিবগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ এস.এম আমিনুজ্জামান। এসময় বক্তারা বলেন, স্বাস্থ্যসম্মত ও ক্ষতিকর রাসায়নিক মুক্ত আম উৎপাদনের জন্য কৃষি গবেষক ও কৃষি কর্মকর্তাদের কাছ থেকে পরামর্শ নিতে হবে আম চাষিদের। পাশাপাশি আম গাছের ক্ষতিকারক কালটারসহ বিভিন্ন কেমিক্যাল ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে হবে। এটি দেশের কোন অনুমোদনকৃত পণ্য নয়। বর্তমানে কালটার ব্যবহারের উপরে কৃষি মন্ত্রণালয়ে আলোচনা চলছে। কালটার ব্যবহারের উপরে অনুমোদন ও নিষেধাজ্ঞা সিদ্ধান্ত হলে এটি প্রয়োগ করা হবে। ২দিনের প্রশিক্ষণে উপজেলার মোট ৪০জন আমচাষি অংশ গ্রহণ করেন।

Read 2216 times

Leave a comment

Make sure you enter the (*) required information where indicated. HTML code is not allowed.